যেসব খাবার মিলিয়ে খেলে স্বাস্থ্যের ক্ষতি - Chuadanga News | চুয়াডাঙ্গা নিউজ | ২৪ ঘন্টাই সংবাদ

Sidebar Ads

test banner

Breaking

Home Top Ad

Responsive Ads Here

Post Top Ad

Responsive Ads Here

Tuesday, February 6, 2018

যেসব খাবার মিলিয়ে খেলে স্বাস্থ্যের ক্ষতি

দৈনন্দিন জীবনে ব্যস্ত থাকায় খাওয়া-দাওয়ায় নানা অনিয়মের কারণে আমরা স্বাস্থ্য সমস্যায় ভুগি। শুধু অনিয়ম নয়, বরং কিছু খাবার একসঙ্গে খাওয়ার কারণেও আমাদের স্বাস্থ্যের ক্ষতি হয়। হজমের জন্য বিভিন্ন খাবার আলাদা আলাদাভাবে খাওয়া প্রয়োজন। অনেকেই আছেন যারা খাবারের স্বাদ বাড়াতে এক খাবারের সঙ্গে অন্য আরেক খাবার মিলিয়ে খেতে পছন্দ করেন। কেউ মাংসের সঙ্গে পনির, ফলমূলের সঙ্গে সালাদ খেতে পছন্দ করেন। কেউ আবার দুধের সঙ্গে ফল খেতে ভালোবাসেন। যাহোক, এভাবে এক খাবারের সঙ্গে মিলিয়ে আরেক খাবার খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর।  বিজ্ঞানীরা বলেছেন, খাবারের সম্বন্বয় যদি ভালো না হয় তা হলে শ্বাসে সমস্যাসহ শুষ্ক ত্বক, দাগ, দীর্ঘস্থায়ী প্রদাহ, কম ঘুম, দুর্বল বোধ করা এবং দীর্ঘস্থায়ী হজম সংক্রন্ত নানা সমস্যা হতে পারে। কারণ কিছু খাবার আছে যেগুলো হজম হতে কিছুটা সময় নেয়। অন্যদিকে কিছু খাবার তাড়াতাড়ি হজম হয়ে যায়। এ কারণে মিলিয়ে খেতে চাইয়ে খাবারের সঠিক সম্বন্বয় থাকা জরুরি। না হলে স্বাস্থ্য সমস্যা হতে পারে।  এবার লাইফস্টাইলবিষয়ক ওয়েবসাইট ‘বোল্ডস্কাই ডট কম’ অবলম্বনে জেনে নিন কোন খাবারের সঙ্গে কোন খাবার মিলিয়ে খাওয়া ক্ষতিকর- একসঙ্গে দুই উচ্চমাত্রার প্রোটিন খাবেন না উচ্চমাত্রার দুই প্রোটিন বিশেষ করে ডিম এবং মাংস একসঙ্গে খাওয়া কখনই উচিত নয়। দুটো খাবারই হজম হতে অনেক সময় নেয়। এ কারণে স্বাস্থ্যের ক্ষতি এড়াতে এ দুটি খাবার একসঙ্গে এড়িয়ে চলাই পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। কার্বোহাইড্রেট ও প্রোটিন কার্বোহাইড্রেটের এবং প্রোটিনযুক্ত খাবার হজম হতে অনেক সময় লাগে। তাই এ দুটো কাবার মিলিয়ে খেলে গ্যাসের সমস্যা হতে পারে। তাই স্বাস্থ্য সুরক্ষায় প্রোটিনের সঙ্গে কার্বহাইড্রেট খাওয়া এড়িয়ে চলুন।  খাবারের পর ফল যে কোন ফল খেলে তা বেশিক্ষণ পেটে থাকে না। অন্যদিকে চর্বি এবং প্রোটিনযুক্ত খাবার হজম হতে অনেক সময় লাগে। এতে খাবারের পর ফল খেলে তা পাকস্থলীতে অনেকক্ষণ থাকে, যা স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর। তাই খাবারের পর পরই ফল খাওয়া এড়িয়ে চলুন। ফলের সঙ্গে পানি/জুস খাবার খাওয়ার সময় পানি কিংবা ফলের জুস পান করবেন না। কারণ খাওয়ার সময় পানি খেলে তা আপনার পাকস্থলীতে পৌঁছে প্রোটিন, কার্বহাইড্রেট এবং চর্বিযুক্ত খাবারের কার্যকারিতা কমিয়ে দেয়। তাই স্বাস্থ্য সুরক্ষায় খাওয়ার ১০ মিনিট পর পানি পানের পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। পাস্তার সঙ্গে টমেটো টমেটোতে প্রাকৃতিকভাবে অম্লিক বৈশিষ্ট্য বিদ্যমান থাকায় তা পাস্তার সঙ্গে মিলিয়ে খাওয়া উচিত নয়। এতে হজমে সমস্যা হতে পারে। একই সঙ্গে এই খাবার খেলে আপনাকে অনেক ক্লান্ত দেখাবে। খাদ্যশস্যের সঙ্গে দুধ এবং কমলার জুস দুধে বিদ্যমান কেসিন এবং কমলার জুসে অ্যাসিড রয়েছে। এ দুটো খাবার একসঙ্গে খেলে তা খাদ্যশস্যে এনজাইমের উপস্থিতিকে নষ্ট করে দেয়। তাই স্বাস্থ্য ক্ষতি এড়াতে খাদ্যশস্য খাওয়ার একঘণ্টা আগে কিংবা পরে দুধ এবং কমলার জুস খাওয়ার পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরা।  বীজ​ এবং পনির এই দুটো খাবার একসঙ্গে খেলে গ্যাসসহ হজমের সমস্যা বাড়তে পারে। আপনার ইমিউন সিস্টেম যদি দুর্বল হয় তাহলে স্বাস্থ্য সুরক্ষায় শিম এবং পনির আলাদাভাবেই খান।  কলা এবং দুধ আয়ুর্বেদে এই দুই খাবারের মিশ্রণকে ‌'বিষাক্ত' হিসেবে চিহ্নিত করা হয়। কলা এবং দুধ একসঙ্গে খেলে তা আপনার মধ্যে হতাশা তৈরি করতে পারে। একই সঙ্গে এই খাবারে আপনার মেজাজাটাও ভালো থাকে না।  দইয়ের সঙ্গে ফল স্বাস্থ্য সুরক্ষায় দইয়ের সঙ্গে ফল মিশিয়ে খাওয়াও ঠিক নয়। এ দুটো খাবার একসঙ্গে খেলে ঠাণ্ডা, কফ, অ্যালার্জি এবং সাইনাসের সমস্যা হতে পারে।  আলু, শসা এবং টমেটোর সালাদ আপনি যদি সালাদ খেতে পছন্দ করেন তাহলে আলু, শসা এবং টমেটো একসঙ্গে খাবেন না। এই খাবারে আপনার হজম প্রক্রিয়ায় সমস্যা হতে পারে। তাই স্বাস্থ্য সুরক্ষায় এই খাবারগুলো একসঙ্গে খাওয়া এড়িয়ে চলুন। তবে চাইলে সালাদে অলিভ অয়েল যোগ করতে পারেন।

No comments:

Post a Comment

Post Bottom Ad

Responsive Ads Here